Monday, April 22, 2024

Burdwan wave: লকডাউন পরবর্তী কঠিন সময়ে বাংলার যাত্রা শিল্পকে বাঁচানোর প্রয়াসে ‘অ্যামেচার যাত্রা উৎসব’ আয়োজনে ‘বর্ধমান ওয়েভ’

লকডাউন পরবর্তী কঠিন সময়ে বাংলার যাত্রা শিল্পকে বাঁচানোর প্রয়াসে ‘অ্যামেচার যাত্রা উৎসব’ আয়োজনে ‘বর্ধমান ওয়েভ‘ (Burdwan wave)

একদিকে মারণ ব্যাধি করোনা। ফার্স্ট ওয়েভ, সেকেন্ড ওয়েভের সঙ্গে তালমিলিয়ে লকডাউনের পর লকডাউন। একের পর এক মৃত্যু মিছিল। সঙ্গে কর্মহীন বাংলার কৃষি ও শ্রমজীবী মানুষরা। অর্থাভাবে বহুকাল জ্বলেনি মঞ্চের আলো। শোনা যায়নি দর্শকের হাততালির আওয়াজ। করোনাকাল শুরু থেকে দুটি রথযাত্রা পেরোলেও বাতিল হয়েছে বহু যাত্রা দলের নতুন নতুন বইয়ের সূচনা। রাস্তায় দেখা যায়নি নতুন যাত্রার পোস্টার। বঞ্চিত হয়েছেন দর্শকরা। বাংলার যাত্রাপ্রেমীরা। এলিট শ্রেণির সময় ওটিটি ওয়েব সিরিজে গেলেও গ্রাম বাংলার যাত্রা-বিনোদনের স্থান শূন্যই রয়ে গিয়েছে। এই অবস্থায় যাত্রা শিল্প ও শিল্পীদের কথা ভেবে এগিয়ে এল ‘বর্ধমান ওয়েভ’ নামে পূর্ব বর্ধমান জেলার একটি সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠন। করোনা ও লকডাউন পরিস্থিতিতে নানা কর্মসূচি নেওয়ার পরে আগামী ২৫ ও ২৬ সেপ্টেম্বর আয়োজন করতে চলেছে ‘অ্যামেচার যাত্রা উৎসব’। প্রতিদিন বিকাল ৫টায় যাত্রা শুরু হবে।

এদিন সংগঠোনের উদ্যোক্তাদের মধ্যে অনির্বাণ হাজরা ও পার্থ চৌধুরী জানান, দীর্ঘদিন প্রেক্ষাগৃহ বন্ধ থাকায় সিনেমা, নাটক, যাত্রা সহ সাংস্কৃতিক কর্মকাণ্ড থমকে ছিল। গ্রাম বাংলার অপেশাদার যাত্রা শিল্পও এই পরিস্থিতিতে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। অপেশাদার যাত্রার চর্চাও দিনদিন কমে আসছে। এই সঙ্কটময় পরিস্থিতিতে অ্যামেচার যাত্রাকে উৎসাহ দেওয়া ও গ্রামবাংলার প্রাচীন এই ধারাটির প্রসারের জন্য আয়োজন ‘অ্যামেচার যাত্রা উৎসবের’।

মঙ্গলবার, বর্ধমান কালেকটরেট রিক্রিয়েশন ক্লাবে এক সাংবাদিক সম্মেলন করা হয় সংস্থার তরফে। সাংবাদিক সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন অনির্বাণ হাজরা, পার্থ চৌধুরী, নীলেন্দু সেনগুপ্ত, শ্যামাপ্রসাদ চৌধুরী, উদিত সিংহ। তাঁরা জানান, জেলায় অ্যামেচার বা অপেশাদার যাত্রা নিয়ে উৎসব এই প্রথম। প্রথম বছরের এই উৎসবে থাকছে শহরের দুটি যাত্রাদলের দুটি যাত্রাপালা। ২৫ সেপ্টেম্বর থাকছে শিল্পী সমন্বয়ের যাত্রাপালা ‘প্রতিক্ষা একটু ভালোবাসার’। ২৬ সেপ্টেম্বর থাকছে নবনাট্য আন্দোলন গ্রুপের যাত্রাপালা ‘মেঘলা আকাশ’।

সংস্কৃতি মন্ত্রক, ভারত সরকারের আর্থিক ও পূর্ব বর্ধমান জেলা পরিষদের সহযোগিতায় এই উৎসবের উদ্বোধন করবেন বিশিষ্ট যাত্রাশিল্পী গৌরি সিংহ। উৎসবটি শহরের দুই জনপ্রিয় যাত্রাশিল্পী প্রয়াত রাখাল সিংহ ও শম্ভু বাগের স্মৃতিতে উৎসর্গ করা হয়েছে। সহযোগিতায় রয়েছে পাল্লারোড পল্লীমঙ্গল সমিতি এবং বোরহাট অরিত্র নাট্যসংস্থা।

আরও পড়ুন

স্বাধীনতা দিবসে বাংলা আমার জন্মভূমি গান উপহার রূপঙ্করের, সুর বাঁধলেন বর্ধমানের সুপরিচিত সুরকার জুটি মিলন-সুমন

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Stay Connected

3,541FansLike
3,210FollowersFollow
2,141FollowersFollow
2,034SubscribersSubscribe
- Advertisement -

Latest Articles